Tista Tv
     

তিস্তা টেলিভিশন ও তিস্তা নিউজ বিডিতে দেশের সকল জেলা উপজেলা কলেজ বিশ্ববিদ্যালয় ও বিভাগীয় পর্যায়ে প্রতিনিধি নিয়োগ চলছে। উদ্যোমী পরিশ্রমী সৎ নির্ভীক ও দেশপ্রেমিক সাংবাদিক, যিনি সৃজনশীল মনন ও মানসে লালিত এবং বাঙালি জাতিসত্তা ও জাতীয় চেতনায় সদাজাগ্রত এবং মুক্তিযুদ্ধ ও স্বাধীনতা সংগ্রামের আদর্শ ও প্রেরণায় উজ্জীবিত, এমন প্রগতিশীল ভাব ও ভাবনায় দীক্ষিত সংবাদকর্মীদের নিয়োগ দেওয়া হবে। আগ্রহীদের সর্বনিম্ন এক বছরের অভিজ্ঞতা ও কর্মষ্ঠ হতে হবে। যে কোনো বিষয়ে নূন্যতম স্নাতক অথবা স্নাতক অধ্যয়নরত হতে হবে। ইংরেজি সাংবাদিকতা বা গণযোগাযোগে স্নাতক অথবা অধ্যয়নরত প্রার্থীরা অধিকতর গুরুত্ব পাবেন। আপনার প্রতিষ্ঠানের বিশ্বব্যাপী প্রচারের জন্য বিজ্ঞাপন দিন। যোগাযোগঃ +8801740983512 (হটলাইন)

ঠাকুরগাঁওয়ে স্কুলছাত্রী সুমনা হত্যার দ্রুত বিচারের দাবিতে তৃতীয় দিনের মত উত্তাল 

| 22-12-2019 | 81 পরিদর্শন
ঠাকুরগাঁও প্রতিনিধি ঃ
ঠাকুরগাঁওয়ে স্কুলছাত্রী সুমনা হত্যার
দ্রুত বিচারের দাবিতে তৃতীয় দিনের মত উত্তাল।
ঠাকুরগাঁও সরকারি বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের ৩য় শ্রেণির ছাত্রী সুমনাকে ধর্ষণ ও হত্যার প্রতিবাদে তৃতীয় দিনের মত উত্তাল পুরো শহর। গতকাল রোববার হত্যাকারী রিয়াজ আহম্মেদ কাননের দ্রুত বিচারের দাবিতে সরকারি বালক-বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়, সেই সাথে সুমনার সহপাঠি ও শহরের বেশ কয়েকটি বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা বিক্ষোভ করে।
ধর্ষন ও হত্যায় ঘটনায় রিয়াজের পাশাপাশি অন্যান্য জড়িতদের দ্রুত বিচার আইনে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবিতে শিক্ষার্থীরা সরকারি বালক উচ্চ বিদ্যালয় বড় মাঠ হতে প্রথমে জেলা প্রশাসক কার্যালয়ের সামনে বিক্ষোভ প্রদর্শন করে। বিভিন্ন শ্লোগানে মুখরিত থাকে শিক্ষার্থীরা।
 জেলা প্রশাসক ড. কেএম কামরুজ্জামান সেলিমের মাধ্যমে প্রধামন্ত্রী বরাবর স্মারকলিপি প্রদান করে তারা। পরক্ষনেই কালেক্টরেট চত্বর থেকে বিক্ষোভ করতে করতে পুলিশ সুপার কার্যালয়ের সামনে অবস্থান নেয় সহপাঠিরা। পরে পুলিশ সুপার মোহা: মনিরুজ্জামান (পিপিএম) এর মাধ্যমে প্রধানমন্ত্রী বরাবর স্মারকলিপি প্রদান করে তারা।
এ সময় বক্তব্যে নিহত সুমনার মা ময়না বেগম জানান, এ ঘটনার পর তার পরিবার নিরাপত্তাহীনতায় ভুগছে। রিয়াজের পরিবারের পক্ষ থেকে বিভিন্ন ধরনের হুমকী-ধমকি দেওয়া হচ্ছে বলে জানান তিনি। তিনি এ ঘটনায় রিয়াজের সাথে জড়িতদের দ্রুত বিচার আইনে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি জানান।
পুলিশ সুপার মোহা: মনিরুজ্জামান বক্তব্যে জানান, সুমনা নিখোজের পর পরিবারের পক্ষ থেকে পুলিশকে জানানোর পর বিভিন্ন গুরুত্বপুর্ন পদক্ষেপ গ্রহন করে পুলিশ। প্রথমে অপহরনের সন্দেহ থেকে দেশের সকল গুরুত্বপুর্ন স্থানে সুমনার ছবি পাঠিয়ে দেওয়া হয়। পরবর্তিতে পরিবারের দেওয়া তথ্য মতে রিয়াজকে আটকের পর তার স্বীকারোক্তি অনুযায়ী ঘটনার বর্ণনা জানা যায়। ঘটনাটি সুমনার তৃতীয় শ্রেণীর বার্ষিক পরীক্ষার খাতা দেখানো ও নম্বর বাড়িয়ে দেওয়াকে কেন্দ্র করে। তিনি এ ঘটনায় যারাই জড়িত থাকুক তাদের দ্রুত বিচারের আওতায় আনার আশ্বাস দেন।
পরে শিক্ষার্থীরা ২ দিনের কর্মসূচী ঘোষনা করে।
 আগামী সোমবার সন্ধায় চৌরাস্তা সমবায় মার্কেট থেকে আলোর মিছিল করে সরকারি বালক উচ্চ বিদ্যালয় বড় মাঠে অবস্থিত কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারে প্রতিবাদী অবস্থান পালন। আগামী মঙ্গলবার সকাল ১০ টা হতে চৌরাস্তায় গণস্বাক্ষর কর্মসূচী পালিত হওয়ার কথা রয়েছে।
উল্লেখ্য, গত ১৫ ডিসেম্বর সুমনা প্রতিবেশী রিয়াজের বাড়িতে যায়। এর পর ৪ দিন নিখোজ থাকার পর গত বৃহস্পতিবার রাতে রিয়াজের বাড়িতে মাটি খুড়ে সুমনার মরদেহ উদ্ধার করে পুলিশ। এ ঘটনায় পুলিশ রিয়াজকে গ্রেফতার করে। এর পর থেকেই তার সহপাটি ও অন্যান্য বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা বিক্ষোভ অব্যাহত রেখেছে।